দক্ষিন চব্বিশ পরগনাপশ্চিমবঙ্গব্রেকিং

কুমিরের টেনে নিয়ে যাওয়া মৎস্যজীবীর দেহ পাওয়া গেল অবশেষে।

বাপি আকুঞ্জি,ডে বার্তা নিউজ ডেস্কঃ দক্ষিণ ২৪ পরগনার পাথর প্রতিমার গোপালনগর গ্রাম পঞ্চায়েতের দুর্গা গোবিন্দপুর গ্রামের বাসিন্দা নিখোঁজ মৎস্যজীবী বিষ্ণুপদ সাঁতরার দেহ অবশেষে উদ্ধার হল আজ সকালে। গতকাল জগদ্দল নদীর যেখান থেকেই তিনি নিখোঁজ হয়েছিলেন সেখানেই তাঁর দেহটিকে খুঁজে পাওয়া যায় আজ।পাথরপ্রতিমা থানার পুলিশ দেহটিকে উদ্ধার করে ইতিমধ্যে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

উল্লেখ্য, গত কাল বুধবার সকালে ওই মৎস্যজীবী বিষ্ণুপদ সাঁতরা সকাল ছটা নাগাদ স্ত্রী মঞ্জুরির সঙ্গে বাড়ি থেকে কিছুটা দূরে জগদ্দল নদীতে মাছ ধরার জন্য জাল পেতেছিলেন। বুক জলে জাল টানার সময় হঠাৎ একটি কুমির এসে স্ত্রীর চোখের সামনেই জালসহ বিষ্ণুপদকে নদীর গভীরে টেনে নিয়ে যায়। মঞ্জুরির চিৎকারে পাশে মাছ ধরতে থাকা একদল মৎস্যজীবী ঘটনাস্থলে আসেন। কিন্তু ততক্ষণে সবশেষ কুমির নিয়ে চলে যায় বিষ্ণুপদ দেহকে মাঝ নদীতে।খবর পেয়ে পাথরপ্রতিমা থানার পুলিশ, ব্লক প্রশাসন ও রামগঙ্গা রেঞ্জ অফিসের বনকর্মীরা তাদের লঞ্চ নিয়ে রাত পর্যন্ত নদী ও আশপাশের খাড়িগুলোকে তল্লাশি অভিযান চালিয়েও ওই মৎস্যজীবীর কোন খোঁজ মেলেনি। অবশেষে আজ সকালে হঠাৎ যেখান থেকেই ওই মৎস্যজীবীকে কুমির টেনে নিয়ে গিয়েছিল সেখানেই তার দেহ উদ্ধার হয়।

আরও পড়ুন

সম্পর্কিত খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
এখনি যুক্ত হন
Close