Skip to content

ভারতের চীনা কোম্পানি গুলো আর্থিক সহায়তা করছে মাওবাদী দের :কিশোর সমরিতে

শুভজিৎ দত্তগুপ্ত ,কলকাতা : সরকারী প্রচার কে নস্যাৎ করে মাওবাদীদের সমান্তরাল সরকার চালানো নিয়ে মুখ খুললেন সামাজিক আন্দোলনের নেতা তথা মধ্যপ্রদেশ প্রাক্তন বিধায়ক কিশোর সমরিতে .সংবাদ মাধ্যমকে দেওয়া নিজের সাক্ষাৎকার কিশোর সমরিতে জানান তাঁর নির্বাচনী ক্ষেত্র বালাঘাট সহ মারলা এবং ঢিন্ধরী তে সমান্তরাল সরকার এখনো চালিয়েযাচ্ছে মাওবাদীরা। পার্শ্ববর্তী রাজ্য ছত্তিশগড়ের সুকমা, বস্তার ,বিজাপুর সহ নয়টি জেলায় শাসন ক্ষমতা কায়েম করেছে মাওবাদীরা। কিশোর সমরিতের মতে ভারতের প্রায় চল্লিশ হাজার মাওবাদী ,সাতষট্টি টি লোকসভা কেন্দ্রে প্রতিনিয়ত নিজের দলকে শক্তিশালী করবার কাজ করে চলেছে দলিত রাজনীতি কে মূলভিত্তি করে। সরকার মাওবাদী সমস্যা নিরসন নিয়ে যে দাবী ই করুক দীর্ঘদিন মাওবাদী সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াই করা এবং তাদের প্রাণঘাতী হামলার শিকার হওয়া কিশোর সমরিতের মতে পরিস্থিতি ক্রমেই জটিল হয়ে উঠছে ,এর মোকাবিলা না করাহলে ভারতের একশোর বেশী লোকসভা অঞ্চলে নির্ণায়ক শক্তি হয়ে উঠবে মাওবাদীরা তখন নেপালের মতোই ভারতীয় রাজনীতিতে তারা হয়ে উঠবে অন্যতম চালিকা শক্তি। সমরিতের অভিযোগ ভারতীয় মাওবাদীদের আর্থিক সাহায্য করছে ভারতে বাণিজ্যরত চীনা কোম্পানি গুলি, সজাগ নয় সরকার। অপারেশন গ্রিনহান্ট কে ব্যর্থ বলে দাবী করে সমরিতে জানান সরকারী গাফিলতি তে বিদেশী আর্থিক সহযোগীতায় শক্তিশালী হয়েউঠছে মাওবাদী সংগঠন। ইতিপূর্বে ভ্রান্ত বিদেশ নীতির কারণে ,ভারতীয় ভূখণ্ড অক্সাই চীনে কব্জা করেছে চীন তাদের ভূখণ্ড একচল্লিশ হাজার বর্গকিলোমিটার থেকে বাড়িয়ে পঁচাত্তর হাজার বর্গকিলোমিটার করে নিয়েছে। বর্তমানে প্রথম সারির মিডিয়া গুলি মাওবাদী সমস্যা কে গুরত্ব না দিলেও ভারতের মাওবাদী সমস্যা ক্রমেই জটিল হচ্ছে বলে মনে করেন কিশোর সমরিতে ।

সাম্প্রতিক খবর